সাবেক শিবির নেতা মহিব্বুল্লাহর বাড়ীতে সন্ত্রাসী হামলা ও ভাংচুর

0
45
বাগেরহাটে সন্ত্রাসী কর্তক মুহিবুল্লার বাড়ি ভাংচুর। ইনসেটে মুহিবুল্লাহ

আমারদেশলাইভ

বাগেরহাটের সাবেক শিবির নেতা মোহাম্মদ মহিব্বুল্লাহর  গ্রামের বাড়ীতে ভয়াবহ সন্ত্রাসী হামলা ও  লুটপাটের ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় তার বাবাসহ তিনজন মারাত্নক আহত হয়েছে । শুক্রবার দুপুর আড়াইটার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

হামলার বিবরণে জানা যায়, বাগেরহাটের মোড়েলগঞ্জ থানার ১০ নং হোগলাবুনিয়া ইউনিয়নের ছাত্রশিবিরের সাবেক নেতা মোহাম্মদ মহিব্বুল্লাহর  বাড়িতে সন্ত্রাসী হামলা হয়েছে। স্থানীয় ছাত্রলীগ ও যুবলীগের সন্ত্রাসীরা গত শুক্রবার দুপুরের দিকে তার বাড়িতে গিয়ে তাকে খুজঁতে থাকে। সন্ত্রাসীরা তাকে না পেয়ে তার বাবাকে জখম করে । এসময় তার ছোট ভাই ও বাসার কেয়ার টেকার এগিয়ে এলে তাদেরকে মারধর করে সন্ত্রাসীরা। আহতদের স্থানীয় হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়।

এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, সরকার দলীয় স্থানীয় ছাত্রলীগ ও যুবলীগের কর্মীরা শিবিরের সাবেক নেতা মোহাম্মদ মহিব্বুল্লাহকে প্রায়ই রাজনীতি থেকে দূরে থাকার এবং সামাজিক মাধ্যমে সরকার বিরোধী প্রচারনা না করার হুমকি দিয়ে আসছিল। কিন্তু মোহাম্মদ মহিব্বুল্লাহ  তাদের কথা না শুনে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে সরকারের গঠনমূলক সমালোচনা করে আসছিলেন। এমতাবস্থায় ছাত্রলীগ ও যুবলীগের কর্মীরা ক্ষুব্ধ হয়ে মহিব্বুল্লাহর বাড়ি ও তাদের মালিকানাধীন ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে কয়েকবার হামলা চালায়। তবে এবারের হামলার সময় মহিব্বুল্লাহ  লন্ডন থাকায় তাকে না পেয়ে তার পরিবারের সদস্যদের উপর হামলা চালায় সন্ত্রাসীরা। হামলায় তার বাবা মোহাম্মদ নুরুল ইসলাম (৬৫), মহিব্বুল্লাহর চাচাত ছোট ভাই মিজানুর রহমান (২৯) এবং তাদের বাসার কেয়ার টেকার মোঃ সাইদ হোসেন (৩৩) আহত হয়। এ ঘটনায় ভুক্তভোগীরা স্থানীয় থানায় মামলা করতে গেলে পুলিশ মামলা নিতে টালবাহানা করে। জানা যায়, হামলাকারীরা সরকার দলীয় হওয়ায় পুলিশ মামলা নিতে অপারগতা প্রকাশ করে।

রাজনৈতিক প্রতিহিংসা ও ভিন্নমতের কারনে মিথ্যা মামলা ও সরকার দলীয় লোকদের দ্বারা মোহাম্মদ মহিব্বুল্লাহর বাড়িতে হামলা, তাকে ও তার বাড়ীর লোকজনকে ভয়ভীতি দেখানোসহ নানাবিধ হয়রানি করার ঘটনা এর আগেও ঘটেছে। দেশে আওয়ামী বিরোধী রাজনৈতিক পরিস্তিতি ক্রমান্বয়ে প্রতিকুল হওয়ায় এক সময় গোপনে দেশ ত্যাগ করে তিনি লন্ডনে চলে যান।

মোহাম্মদ মহিব্বুল্লাহর পরিবারের অভিযোগ সরকার দলীয় বিভিন্ন ক্যাডার বাহিনী তাকে খুঁজে না পেয়ে তার পরিবারের লোকজনদের মারধর ও হয়রানী করছে। ইতিমধ্যে তার নামে একাধিক  মামলা হয়েছে এবং  বাড়ীর মালামালের ব্যাপক ক্ষতিসাধন করেছে সন্ত্রাসীরা। মোহাম্মদ মুহিব্বুল্লাহ লন্ডনে   বিভিন্ন মানবাধিকার সংগঠনের সাথে সক্রিয় ভাবে জড়িত আছেন বলে জানা যায়।